Home / জাতীয় / সাবহানাজ রশীদ দিয়া ফেসবুকের বাংলাদেশ কান্ট্রি ম্যানেজার

সাবহানাজ রশীদ দিয়া ফেসবুকের বাংলাদেশ কান্ট্রি ম্যানেজার

অনলাইন ডেস্কঃ সাবহানাজ রশীদ দিয়াকে বাংলাদেশে কান্ট্রি ম্যানেজার নিয়োগ দিয়েছে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুক। এই নিয়োগের মাধ্যমে ফেসবুকের একজন প্রতিনিধি পেলো বাংলাদেশ। তাকে গত জুলাই মাসে নিয়োগ দেয় ফেসবুক। তিনি বাংলা ভাষা ও বাংলাদেশের পলিসি বিষয়ে কাজ করবেন বলে জানা গেছে।
ডাক ও টেলিযোগাযোগ মন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার সোমবার (৭ সেপ্টেম্বর) ফেসবুকের সঙ্গে ডিজিটাল প্ল্যাটফর্মে বৈঠক করেন। ওই বৈঠকে ফেসবুক কর্তৃপক্ষ দিয়াকে বাংলাদেশ বিষয়ক কর্মকর্তা হিসেবে পরিচয় করিয়ে দেন।

বাংলাদেশ অংশ দেখভালের জন্য ফেসবুক একজন বাংলা ভাষাভাষীকে নিয়োগ দেওয়ায় বৈঠকেই ফেসবুককে ধন্যবাদ জানান মোস্তাফা জব্বার। এই উদ্যোগ দেশে ফেসবুক সংক্রান্ত যেকোনও সমস্যার দ্রুত সমাধান দেবে বলে মন্ত্রী মনে করেন।

সাবহানাজ রশীদ দিয়া গ্র্যাজুয়েশন করেছেন বাংলাদেশে ইনডিপেনডেন্ট বিশ্ববিদ্যালয় থেকে অর্থনীতি ও যোগাযোগ বিষয়ে। তিনি যুক্তরাষ্ট্রের ইউনিভার্সিটি অব ক্যালিফোর্নিয়া থেকে পাবলিক পলিসি ও ডাটা সায়েন্সে মাস্টার ডিগ্রি অর্জন করেন। তিনি ১০ বছর ধরে ওয়ান ডিগ্রি ইনিশিয়েটিভ নামের একটি অলাভজনক প্রতিষ্ঠানের প্রতিষ্ঠাতা ও প্রধান নির্বাহী হিসেবে কাজ করেছেন। এছাড়াও তিনি গুগল, বিশ্বব্যাংক, ইউএসএইডসহ বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানে কাজ করেছেন।

শাবহানাজ রাশিদ দিয়া

বাংলাদেশে সাবহানাজ রশীদ দিয়া ফেসবুকের যে বিষয়গুলো দেখভাল করবেন,

বাংলাদেশ বিষয়ক একজন কর্মকর্তা হিসেবে কী ধরণের কাজ করতে হবে, সে সম্পর্কে ধারণা দেয়া হয়েছিল ফেসবুকের বিজ্ঞাপনে।

‘পাবলিক পলিসি ম্যানেজার স্থানীয় ভাষা, জননীতি এবং বিধিবিধান বিশ্লেষণ করে দেশটি সম্পর্কে তথ্য যোগানের প্রথম কাজটি করবেন। সেসব তথ্যের ভেতর ওই দেশের রাজনৈতিক এবং সামাজিক গভীর পর্যবেক্ষণ থাকবে, যার ভিত্তিতে ওই দেশের পরিবর্তনশীল পরিস্থিতিসহ সরকার, এনজিও, অ্যাকাডেমিয়া, শিল্প, প্রযুক্তিসহ অন্যান্য কোম্পানির সঙ্গে ফেসবুকের অভ্যন্তরীণ বিভিন্ন শাখার গভীর সম্পর্ক গড়ে তোলা হবে।”

দক্ষিণ এশিয়ার পাবলিক পলিসি ডিরেক্টরের কাছে তিনি রিপোর্ট করবেন।

ফেসবুক আরও জানিয়েছিল, পাবলিক পলিসি ম্যানেজার এমন একটি টিমের সদস্য হিসাবে কাজ করবেন, যাদের গোপনীয়তা, নিরাপত্তা, উম্মুক্ত ইন্টারনেট, ডিজিটাল অর্থনীতির প্রবৃদ্ধি, নতুন নতুন বিভিন্ন পক্ষের সম্পৃক্ততা তৈরিতে করতে কাজ করতে হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*